‘যুক্তরাষ্ট্রের সিদ্ধান্ত রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত’

102

র‌্যাবের বর্তমান ও সাবেক ৭ কর্মকর্তার ওপর যুক্তরাষ্ট্রের নিষেধাজ্ঞার সিদ্ধান্তকে একপেশে ও রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত বলে মন্তব্য করেছেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। যুক্তরাষ্ট্রের এ সিদ্ধান্ত দেশের ভেতরে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসীদের উৎসাহিত করবে বলেও মনে করেন তিনি।

ওবায়দুল কাদের রোববার সচিবালয়ে তার দপ্তরে সাংবাদিকদের বলেন, বাংলাদেশের মহান স্বাধীনতার সুবর্ণজয়ন্তী উদ্যাপনলগ্নে যুক্তরাষ্ট্রের এমন একটি সিদ্ধান্তে আমরা বিস্মিত ও ব্যথিত হয়েছি। যুক্তরাষ্ট্রের এ সিদ্ধান্ত দেশের ভেতরে জঙ্গিবাদ ও সন্ত্রাসীদের উৎসাহিত করবে। আমাদের বিশ্বাস, মার্কিন প্রশাসন তাদের এই অযৌক্তিক ও একপেশে সিদ্ধান্ত থেকে সরে আসবে।

তিনি বলেন, র‌্যাব একটি এলিট ফোর্স হিসেবে কাজ করছে, সাম্প্রতিক জঙ্গিবাদ দমনে এই বাহিনী অত্যন্ত পেশাদারিত্বের পরিচয় দিয়ে কাজ করছে। এ বাহিনীর কেউই আইনের ঊর্ধ্বে নয়। নারায়ণগঞ্জর ঘটনায় এ বাহিনীর অন্তত সাতজন মৃত্যুদ-ে দ-িত হয়েছিল।

কোনো অভিযোগ থাকলে বাহিনী নিজে কিংবা মন্ত্রণালয় তদন্ত করে ব্যবস্থা নিচ্ছে। ঢালাওভাবে অভিযোগ এনে একটি বাহিনীর প্রধান এবং সাবেক কর্মকর্তাদের চিহ্নিত করে নিষেধাজ্ঞা প্রদান অযৌক্তিক। মানবাধিকারের কথা বললেও প্রকৃতপক্ষে এ ধরনের সিদ্ধান্তই একধরনের মানবাধিকার লঙ্ঘন।
আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, যাদের দেশে বিচারবহির্ভূত হত্যাকা- নিয়ে সাধারণ মানুষ দিনের পর দিন বিভিন্ন সিটিতে রাস্তায় নামে, তাদের অন্য দেশের মানবাধিকার পরিস্থিতি নিয়ে কোনো ধরনের বক্তব্য গ্রহণযোগ্য নয়। তিনি আরও বলেন, আমরা নিশ্চিত, এ সিদ্ধান্তের গভীরে বাংলাদেশ বিরোধী কিছু ব্যক্তি বা অপশক্তির রাজনৈতিক উদ্দেশ্য থাকতে পারে।

Leave A Reply

Your email address will not be published.